মুশফিকের সফল বিশ্বকাপ অভিযান!

নিউজ ক্রিকেট ২৪ ডেস্ক »

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মুশফিকুর রহিম বাংলাদেশ দলের ভরসার এক নাম। তাকে মি. ডিপেন্ডেবল নামে আখ্যায়িত করা হয়ে থাকে। খুবই ঠাণ্ডা মাথার একজন খেলোয়াড় মুশফিকুর রহিম বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলে ১৪ বছর ধরে খেলছেন। বর্তমানে উইকেটের পিছনে বেশ গুরুদায়িত্ব পালন করে আসছেন। এমনকি তার সুনিপুণ ব্যাটিং দিয়ে তিনি দলের জন্য রান তৈরিতে অনেক বড় ভূমিকা পালন করেন মিঃ ডিপেন্ডেবল মুশফিকুর রহিম।

ওয়ানডেতে মুশফিকুর রহিম ৬ হাজার রান থেকে আর মাত্র ৭৫ রান দূরে রয়েছেন। বাংলাদেশী ব্যাটসম্যানদের মধ্যে ওয়ানডেতে ৬ হাজারী ক্লাবে প্রবেশ করেছেন দুইজন ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল খান ও সাকিব আল হাসান।‌

২০১৯ সালের আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ছিলো মুশফিকুর রহিমের ক্যারিয়ারের চতুর্থ বিশ্বকাপ। এই বিশ্বকাপটা মুশফিকুর রহিমের বেশ ভালো কেটেছে বলা যায়। তবে মুশফিকুর রহিম এবার সমালোচিত ছিলেন শুধু নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচে কেইন উইলিয়ামসনের উইকেট নিতে না পারার জন্য। তবে এ ধরনের ছোট খাটো ভুল যেমন ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় তেমনি মুশফিকুর রহিমও একজন মানুষ তার ভুল হওয়াটা স্বাভাবিক।

চলুন দেখে নেয়া যাক কেমন ছিলো এবারের বিশ্বকাপে মুশফিকুর রহিমের পারফরম্যান্স। প্রথমে নজর দেই মুশফিকুর রহিমের ব্যাটিং পারফরম্যান্সে;
ম্যাচ: ৮
ইনিংস: ৮
নট আউট: ১
রান: ৩৬৭
সর্বোচ্চ: ১০২*
গড়: ৫২.৪২
স্ট্রাইক রেট: ৯২.৬৭
হাফ সেঞ্চুরি: ২
সেঞ্চুরি: ১
ডাক: ০
বাউন্ডারি: ৩০
ওভার বাউন্ডারি: ২।

মুশফিকুর রহিম একাই সামাল দিয়েছেন উইকেটের পেছনে। তাহলে উইকেটের পেছনে কেমন করেছেন মুশফিক সেটি বাদ যাবে কেন?

চলুন দেখে নেয়া যাক মুশফিকের কিপিং পারফরম্যান্স;
ম্যাচ: ৮
ইনিংস: ৮
ডিসমিশাল: ১০
ক্যাচ: ৮
স্ট্যাম্পিং: ২
সর্বোচ্চ: ৩ (১টি ক্যাচ ও ২টি স্ট্যাম্পিং)
ইনিংস প্রতি ডিসমিশাল: ১.২৫

মুশফিকুর রহিম এবারের বিশ্বকাপে বাংলাদেশী ব্যাটসম্যানদের মধ্যে ২য় অবস্থানে রয়েছে। এবারের বিশ্বকাপে মুশফিকুর রহিম ব্যাটিংয়ে বেশ ভালোমতো সামাল দিয়েছেন। মুশফিকুর রহিম বাংলাদেশ ক্রিকেটের অনেক বড় সম্পদ।

বিগত ১৪ বছর ধরে দলকে সার্ভিস দিয়ে যাচ্ছেন। সে আরো অনেক বছর দলকে সার্ভিস দিবে আশা করা যায়। শুভকামনা রইল মিঃ ডিপেন্ডেবল মুশফিকুর রহিমের জন্য।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »