মাঠের খেলাটা যেনো উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের চাইতে ভালো হয়, চাওয়া দুর্জয়ের

কে এম আবু হুরায়রা »

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ (বিপিএল) এর আগের ৬টি আসরের থেকে এবারের আসরটি সম্পূর্ণ ভিন্ন হতে যাচ্ছে। আগের মত নেই কোন ফ্রাঞ্চাইজি। মূলত বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুকে উৎসর্গ করেই এরারের আসরটি আয়জন করেছে বিসিবি। সব দলগুলোকে নিজেদের মালিকানায় নিয়ে এর নাম পরিবর্তন করে রাখা হয়েছে ‘বঙ্গবন্ধু বিপিএল’।

গতকাল (৮’ই ডিসেম্বর) জমকালো আয়োজনের মধ্যে দিয়ে উঠেছে বঙ্গবন্ধু বিপিএল-২০১৯ এর পর্দা। তবে বরাবরের মতই দুশ্চিন্তা মাঠ নিয়ে। সুযোগ পেলেই বিপিএলকে বিশ্বের সেরা ফ্রাঞ্চাইজি লীগ দাবী করতে বিসিবি কর্তাদের জুড়ি মেলা ভার৷ তবে তাদের মত কোন সুবিধাই পায়না এই লীগ। পুরো বিপিএল এর আয়োজন ৩টি ভেন্যুতে হলেও মূলত ভেন্যু মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামই। তবে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মঞ্চ এবং দর্শকদের একাংশও ছিলো মাঠের মূল অংশে। তাই আগামী (১১’ই ডিসেম্বর) বঙ্গবন্ধু বিপিএল এর প্রথম ম্যাচের আগে মাঠের প্রস্তুতি নিয়েও জেগেছে শংকা।

তবে সকল শংকা উড়িয়ে দিয়ে আশার বানী শোনালেন সাবেক অধিনায়ক এবং বিসিবির পরিচালক নাইমুর রহমান দুর্জয়।

তিনি বলেন, ‘এটাতো শুধুই পরিষ্কার করার ব্যাপার। ততটা কষ্ট হবেনা। আগে ২-৩ দিন বৃষ্টির পরও খেলা হয়েছে সেক্ষেত্রে মনে হয়না অনুষ্ঠানের কারনে মাঠে কোন সমস্যা হবে।’

তবে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান যতটা জাঁকজমকপূর্ণ হয়েছে মাঠের খেলাটা তার থেকেও যেন ভালো হয় সেই প্রত্যাশা বিসিবি পরিচালকের।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »