বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের ‘স্যালুট’ জানিয়েছেন মুশফিক!

সানিউজ্জামান সরল »

অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপের ১৩ তম আসরে ভারতকে হারিয়ে ১ম বারের মত বিশ্বকাপ জয়ের স্বাদ নিয়েছে লাল-সবুজের ছোট প্রতিনিধিরা। জুনিয়র টাইগারদের এমন অর্জনে আনন্দের জোয়ারে ভাসছে দেশের সকল ক্রিকেট প্রেমী। ইতিহাস গড়ে বিশ্বকাপ লাভ করেছে যুবারা। জুনিয়রদের এমন ঐতিহাসিক অর্জনে খুশি সিনিয়ররাও। বিশ্বকাপ জয়ের পর জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যুবদলকে ‘অভিনন্দন’ জানিয়ে পোস্ট করায় তার প্রমাণ। আর মুশফিক তো জুনিয়রদের এমন ঐতিহাসিক অর্জনে গর্বিত হয়ে তাদের ‘স্যালুট’ জানিয়েছেন।

অদম্য এক হুঙ্কার দিয়ে বিশ্বক্রিকেটকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে টাইগার যুবারা। পেয়েছে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নের তকমা। জাতীয় দলের অনেক বড় বড় অর্জন আছে! অস্ট্রেলিয়াকে টেস্টে হারানো, ইংল্যান্ডকে হারের লজ্জা দেওয়া, পাকিস্তানকে বাংলা ওয়াশ করা…ইত্যাদি, ইত্যাদি। তবে জুনিয়র টাইগাররা যা অর্জন করেছে, তা আগে কি কখনো বাংলাদেশ ক্রিকেট কল্পনাও করতে পেরেছে? উত্তরটা স্বভাবজাত ভাবেই আসবে ‘না’। কেননা, বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হওয়াটা তো আর চাট্টিখানি কথা নয়। বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলটা অসাধ্য সাধন করে দেখিয়েছে। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় অর্জন এটিই, বললে হয়তো ভুল কিছু হবে না।

বিশ্বকাপ জয় করে আজ (১২ ফেব্রুয়ারি) ‘সোনার বাংলায়’ ফিরবে সোনার ছেলেরা। ছোট টাইগারদের এত বড় অর্জনে দেশবাসী থেকে শুরু করে ক্রিকেট বোর্ড ও ক্রিকেটের সাথে সংশ্লিষ্ট ব্যাক্তি বর্গরাও ভাসছে বড্ড আনন্দের জোয়ারে। মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামকে নব্য সাঁজে সাঁজানো হয়েছে। উদ্দেশ্যে একটাই, সেটা হলো বিশ্বকাপ জয়ী সোনার ছেলেদের বরণ করে নেওয়া। স্টেডিয়ামের চারিদিক ঘিরে আলোক বাতি থেকে শুরু করে আকবর আলীদের ছবিও টাঙানো হয়েছে বড় করে। হোম অব ক্রিকেটের নব্য রূপ দেখতে আজ বেলা ১১ টা নাগাদ মাঠে এসেছিলেন জাতীয় দলের ক্রিকেটার মুশফিকুর রহিম।

মাঠে এসেই জুনিয়র প্রতি গর্ব ও সম্মান প্রদর্শনে অভিনব এক পদ্ধতি বেছে নিলেন জাতীয় দলের এই উইকেট রক্ষক ব্যাটসম্যান। বড় করে টাঙানো টাইগার যুবাদের ছবির ব্যানারের সামনে দাঁড়িয়ে ‘স্যালুট’ করেন মুশফিক। এমনকি ওই দৃশ্যের একটি প্রতিকৃতিও নিয়ে রাখেন তিনি। পরবর্তীতে ছবিটা মুশফিক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করেন এবং ছবিটির ক্যাপশন, ‘proud of you brothers 🤲🤲🤲।’   

প্রসঙ্গত, এর আগেও ফাইনাল মহারণ জয় করার দিন যুবদলকে অভিনন্দন জানিয়ে নিজের অফিসিয়াল ফেসবুক পেইজে পোস্ট করেন মুশফিক। আর আজ (১২ ফেব্রুয়ারি) সরাসরি ‘স্যালুট’ই করে বসলেন জাতীয় দলের নিয়মিত এই ক্রিকেটার। 

https://www.facebook.com/106131822011/posts/10157538990362012/

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »