বাংলাদেশের নতুন কোচের বেতন ও অন্যান্য আনুষঙ্গিক সুবিধা

নিউজ ক্রিকেট ২৪ ডেস্ক »

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের কোচিং নিয়োগ শেষ হলো গতকাল। বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন দাবি করেছিলেন যে অনেক হাই প্রোফাইল কোচ আবেদন করেছিলেন বাংলাদেশ দলের কোচ হবার জন্য। তাদের সকলকে পেছনে ফেলে বাংলাদেশ দলের কোচ হয়ে গিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার রাসেল ডমিঙ্গো। রাসেল ডমিঙ্গোর আগে আলোচনাতে ছিলেন নিউজিল্যান্ডের মাইক হেসন। ডমিঙ্গো যদিও হেসনের মতো হাই প্রোফাইল নন। কিন্তু তার সরাসরি উপস্থাপনা, পরিকল্পনা বিসিবির বাকিদের থেকে তাকে আলাদা দৃষ্টি উপস্থাপন করতে বাধ্য করেছে। আর তারই ফলস্বরূপ রাসেল ডমিঙ্গো আগামী দুই বছরের জন্য বাংলাদেশ দলের হেড কোচ হয়েছেন।

বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি পারিশ্রমিক পাওয়া কোচ ছিলেন শ্রীলঙ্কার চন্ডিকা হাতুরেসিংহে। তিনি মাসিক বেতন পেতেন ২৫ হাজার ৮০০ ডলার যা বাংলাদেশী টাকায় ২১ লাখ ৭৩ হাজার টাকা। আর বাংলাদেশের সদ্য বিদায়ী কোচ স্টিভ রোডস পেতেন ২২ হাজার ডলার যা বাংলাদেশী টাকায় ১৮ লাখ টাকা। আর সদ্য নিয়োগ প্রাপ্ত বাংলাদেশ দলের কোচ রাসেল ডমিঙ্গো পাবেন ১৫ লাখ ডলারের কাছাকাছি যা বাংলাদেশী টাকায় ১২ লাখ ৬৮ হাজার টাকা। অর্থ্যাৎ সর্বশেষ দুজনের থেকে তিনি কম নিচ্ছেন। এমনকি বিসিবি যদি হাইপ্রোফাইল কোচ নিতে চাইতো তাহলে এই ১৫ হাজার ডলারে নিশ্চয়ই পেতো না। এমনকি যে মাইক হেসনকে নিয়ে আলোচনা হতো সে দাবি করেছে ৩০ হাজার ডলারের বেশি যা বাংলাদেশী টাকায় ২৫ লাখ টাকার বেশি। অর্থ্যাৎ সে তুলনায় বেশ কম টাকায় এক প্রোফেশনাল কোচ পেয়ে গেল বিসিবি।

এই মাসিক বেতনের পাশাপাশি আরো অনেক অন্যান্য আনুষঙ্গিক সুবিধা পাবে রাসেল ডমিঙ্গো। যা বাকি কোচরাও পেতেন। বাংলাদেশ দলের কোচিং স্টাফদের আবাসন ব্যবস্থা দুরকমের যে রকম চায় তাকে সেরকম দেয়া হয়। একটি হচ্ছে যদি কেউ ফ্ল্যাট নিয়ে থাকতে চায় পরিবারের সাথে তাহলে গুলশান বনানীতে থাকার ব্যবস্থা করা হয় আর বরাবরের মতো ভাড়া বিসিবি দিয়ে থাকে। ডমিঙ্গোর ক্ষেত্রে এর ব্যতিক্রম হচ্ছে না। এছাড়া তিনি পাবেন বিশ্বমানের ইন্সুরেন্স যা আন্তর্জাতিক খেলোয়াড় এবং কোচরা পেয়ে থাকেন। এছাড়া তার গাড়ি থাকবে ২৪ঘন্টা চালকসহ। আর সাথে পাবেন ভ্রমণভাতাও যা শুধু তিনি নন তার পরিবারও পাবেন আর সাথে বোনাস থাকবে। আর সাধারণ বোনাসের পাশাপাশি সাথে থাকবে পারফরম্যান্স , সফর, ম্যাচ বোনাস। আর দেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির উপর নির্ভর করে কখনো কখনো দেয়া হবে সার্বক্ষণিক নিরাপত্তাকর্মী।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »