বাংলাদেশী আম্পায়াররা আইসিসি ইভেন্টের দাবিদার: মুকুল

নিউজ ক্রিকেট ২৪ ডেস্ক »

আইসিসির পুরুষ ক্রিকেটের ইভেন্টগুলোতে বাংলাদেশি আম্পায়ারদের উপস্থিতি নেই। নারী ক্রিকেট ও বয়সভিত্তিক ক্রিকেটে বাংলাদেশি আম্পায়ারদের দায়িত্ব দেওয়া হলেও আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি, ওয়ানডে বিশ্বকাপ বা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এখনও কেউ দায়িত্ব পালন করতে পারেননি। এশিয়া কাপে আম্পায়ারিং দিয়ে বাজিমাত করা বাংলাদেশি আম্পায়ার মাসুদুর রহমান মুকুল মনে করেন, বাংলাদেশি আম্পায়াররাও এখন আইসিসি ইভেন্টে দায়িত্ব পালনের যোগ্য।

এশিয়া কাপে মুকুল দারুণ আম্পায়ারিং দেখিয়ে কুড়িয়েছেন প্রশংসা। ভারত-পাকিস্তানের দুটি ম্যাচেই পালন করেছেন অন ফিল্ড আম্পায়ারের দায়িত্ব। দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীর হাই ভোল্টেজ দুই ম্যাচে দায়িত্ব পালনের অনুভূতি জানালেন মিডিয়াকে।

মুকুল বলেন, ‘এই অনুভূতি অন্যরকম। ভারত-পাকিস্তানের ম্যাচ তো বড় ব্যাপার। ক্যারিয়ারের শুরুতেই এত বড় দুটা ম্যাচ পেলাম পরপর এবং সফলভাবে শেষ করতে পেরেছি। অনেক রোমাঞ্চ, উত্তেজনা ও আনন্দ ছিল।’

ভারত পাকিস্তান ম্যাচ নিয়ে বাড়তি কোন চাপ ছিল না বলে জানান মুকুল। তিনি বলেন, বাড়তি কোনো চাপ তেমন অনুভব করেননি, ‘ভারত-পাকিস্তান বলুন, অস্ট্রেলিয়া বলুন, বাংলাদেশ বলুন, মাঠে তো সবাই জিততে চায়। চাপ বলতে নামের চাপ। কারা খেলছে, ক্রিকেটে তাদের অবস্থান কোথায়… যে আম্পায়ার ঐ চাপ থেকে দূরে থাকতে পারবে সে-ই ভালো করতে পারবে। চাপ তো ছিলই। তবে খেলোয়াড়রা কখনো চাপ দেয় না। ওরা ক্রিকেটকে ক্রিকেটের মতো খেলতে চায়। এটাই চাপ, আর কোনো চাপ ছিল না।’

মুকুল মনে করেন, বাংলাদেশি আম্পায়াররা এখন আইসিসির বৈশ্বিক আসরে দায়িত্ব পালনের যোগ্য। যদিও নিজেকে আরও প্রস্তুত করে তুলতে চান তিনি। মুকুল বলেন, ‘আমি ভালো করা মানে বাংলাদেশ ভালো করা। এখন বাংলাদেশের আম্পায়াররা আইসিসির ইভেন্টে দায়িত্ব পাওয়ার দাবীদার। তবে মনে করি না আমি আগামী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে দায়িত্ব পালনের যোগ্য। আমার এটা শুরু। যদি ধরে রাখতে না পারি এখানেই শেষ হয়ে যাবে। আইসিসিও দেখবে কতদিন ভালো আম্পায়ারিং করছে। বড় জায়গায় আম্পায়ারিংয়ের আশা তো অবশ্যই করি।’

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »