বর্ষসেরা ক্রিকেটার নির্বাচিত হলেন ওয়ার্নার

মমিনুল ইসলাম »

এক বছরের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে গতবছরই ফিরেছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে। ফিরেই নিজের আসল মহিমায় ডেভিড ওয়ার্নার। অস্ট্রেলিয়ার বর্ষসেরা ক্রিকেটারের পুরষ্কার অ্যালন বোর্ডার মেডেল পুরষ্কার জিতেছেন ডেভিড ওয়ার্নার। এছাড়াও টি-টোয়েন্টির বর্ষসেরা পুরষ্কার ক্রিকেটারের পুরষ্কার জিতেছেন তিনি।

আম্পায়ার, ক্রিকেটার ও সংবাদ কর্মীদের ভোটেই মূলত নির্বাচন করা হয় অজিদের বর্ষসেরা ক্রিকেটার। স্টিভ স্মিথকে এক ভোটের ব্যবধানে হারিয়ে বর্ষসেরা ক্রিকেটারের পুরষ্কার জিতেছেন ডেভিড ওয়ার্নার। বর্ষসেরা ক্রিকেটারের সাথে জিতেছেন বর্ষসেরা টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটারের পুরষ্কারও। বর্ষসেরা ওয়ানডে ক্রিকেটার নির্বাচিত হয়েছেন অ্যারন ফিঞ্চ আর বর্ষসেরা টেস্ট ক্রিকেটার নির্বাচিত হয়েছেন তরুণ মার্নাস ল্যাবুশানে। গতবছর বর্ষসেরা ক্রিকেটার হিসেবে নির্বাচিত হয়েছিলেন পেসার প্যাট ক্যামিন্স।

মেয়েদের বর্ষসেরা ক্রিকেটার পুরষ্কার বেলিন্ডা ক্লার্ক অ্যাওয়ার্ড জিতেছেন নারী ক্রিকেট দলের অলরাউন্ডার অ্যালিস পেরি। আর মেয়েদের বর্ষসেরা ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটার নির্বাচিত হয়েছেন অ্যালিসা হিলি।

২০১৯ সালে ক্রিকেটে ফিরে ব্যাট হাতে দুর্দান্ত খেলেছেন ডেভিড ওয়ার্নার। অ্যাশেজে ব্যাট হাতে ব্যর্থ থাকলেও নিজেদের মাটতে ওয়ার্নার ছিলেন অপ্রতিরোধ্য। নিজেদের মাটিতে পাকিস্তানের বিপক্ষে খেলেন ক্যারিয়ার সেরা অপরাজিত ৩৩৫ রানের ইনিংস। নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ফেরার পর অজিদের হয়ে সব ফরম্যাট মিলিয়ে করেছেন ১৮১৫ রান। এর আগে ২০১৬ ও ২০১৭ সালে টানা দুই বছর নির্বাচিত হয়েছিলেন বর্ষসেরা ক্রিকেটার।

বর্ষসেরা ক্রিকেটার নির্বাচিত হয়ে ওয়ার্নার বলেন, ‘ আমি এটার জন্য প্রস্তুত ছিলাম না। সময়টা আমার জন্য অনেক কঠিন ছিলো। আসলে কই থেকে শুরু করবো বুঝে উঠতে পারছি না। তবে আমি আগেই যা বলেছি যে আমাকে সুযোগ দেয়ার জন্য ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াকে ধন্যবাদ। আমার জন্য আপনারা যা করেছেন তাঁর জন্য আমি আপনাদের কাছে কৃতজ্ঞ। ‘

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »